বিশ্বব্যাপি ৫জি নেটওয়ার্ক পুরোপুরি ভাবে চালু না হলেও ৫জি স্মার্টফোন তেরী-তে সেটা কোন বাধার কারণ হয়ে দাড়াচ্ছে না। বাজার গবেষণা প্রতিষ্ঠান স্ট্র্যাটেজি অ্যানালাইটিকস জরিপে জানা গিয়েছে এই চলতি বছরেই ৫জি স্মার্টফোন বিক্রি প্রায় ২০ কোটি ইউনিট ছাড়িয়ে যাবে।

তবে বাজার বিশ্লেষকেরা বলছেন, চীনে মারাত্মক ভাবে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার ঘটনায় ৫জি স্মার্টফোন বিক্রিতে বাধা সৃষ্টি হতে পারে।  কেননা স্মার্টফোনের বাজারে চীন এখনও শীর্ষস্থান দখল করে আছে।

স্ট্র্যাটেজি অ্যানালাইটিকসের তথ্য অনুযায়ী, ২০১৯ সালে ১ কোটি ৯০ লাখ ৫–জি স্মার্টফোন বিক্রি হয়েছিল। ৫জি স্মার্টফোনের ক্ষেত্রে সবচেয়ে বড় বাজার হতে পারে যুক্তরাষ্ট্র, চীন, দক্ষিণ কোরিয়া, জার্মানি ও জাপান। স্ট্র্যাটেজি অ্যানালাইটিকসের নির্বাহী পরিচালক নেইল মাউসটন বলেন, করোনাভাইরাস আতঙ্কে অর্থনৈতিক ধীরগতির কারণে ৫জি স্মার্টফোনের চাহিদা কমতে দেখা যেতে পারে। বর্তমানে এশিয়ায় করোনাভাইরাস মহামারিতে স্মার্টফোন উৎপাদন ব্যাহত হচ্ছে। এতে সাপ্লাই চেইনে সরবরাহ কমে গেছে এবং খুচরা স্মার্টফোন বিক্রিতেও প্রভাব পড়েছে।

স্ট্র্যাটেজি অ্যানালাইটিকসের পূর্বাভাসে জানানো হয়, করোনাভাইরাসের আতঙ্ক কমে গেলে চলতি বছরের দ্বিতীয় প্রান্তিক, অর্থাৎ, এপ্রিল থেকে জুন মাসে স্মার্টফোনের চাহিদা বাড়তে দেখা যাবে।