শেয়ার

স্বল্প মূল্যে আরো একটি এন্ট্রি লেভেলের স্মার্টফোন বাজারজাত করলো ওয়ালটন, নাম  প্রিমো ডি৯। মাত্র ২৯৩০ টাকায়-ই আপনারা পাচ্ছেন নতুন ৩জি সাপোর্টেড এই স্মার্টফোনটি।

ক্রয় ক্ষমতার মধ্যে স্মার্টফোনের দাম রাখার জন্য বেশ কয়েক বছর ধরেই কাজ করছে ওয়ালটন। আর তার-ই ধারাবাহিকতায় ওয়ালটন রিলিজ করলো বাজেট ফ্রেন্ডলী স্মার্টফোন ওয়ালটন প্রিমো ডি৯।

৫১২ মেগাবাইট র‌্যাম, ৮ জিবি ইন্টারনাল মেমোরী ৪” ডিসপ্লে পাচ্ছেন এন্ট্রি লেভেলের এই স্মার্টফোনটি-তে। দাম কম হলেও পারফরমেন্সের দিক দিয়ে প্রিমো ডি৯-কে পেছনে ফেলার কোন অবকাশ নেই।

এক নজরে ওয়ালটন প্রিমো ডি৯:

  • অ্যান্ডোয়েড ৮.১
  • ১.৩ গিগাহার্জ কোয়াড-কোর প্রসেসর
  • ৫১২ মেগাবাইট র‌্যাম, ৮ জিবি রম (৩২ জিবি পর্যন্ত বর্ধিত করা যাবে)
  • ৪” এফ ডব্লিউ ভি.জি.এ স্ক্রিন
  • ২ মেগাপিক্সেল রিয়্যার ক্যামেরা সাথে এলইডি ফ্ল্যাশ
  • সেলফি তোলার জন্য রয়েছে ০.৩ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা
  • ব্যাটারি রয়েছে ১৪০০ মিলি এ্যম্পিয়ার

বক্সে যা যা থাকছে

  • হ্যান্ডসেট
  • অ্যাডাপ্টার
  • ইউ.এস.বি ক্যাবল
  • ইয়ারফোন
  • প্রোটেকশন পেপার
  • ওয়ারেন্টি কার্ড ও সেফটি ইন্সট্রাকশন

ইউজার ইন্টারফেস

প্রিমো ডি৯ এ ইউজ করা হয়েছে কাস্টমাইজ ইউজার ইন্টারফেস। এর ইউজার ইন্টারফেস  বেশ সিম্পল এবং ইউজার ফ্রেন্ডলী। অপারেটিং সিস্টেম রয়েছে লেটেস্ট অ্যান্ড্রয়েড ৮.১ অরিয়ো।

ডিসপ্লে এবং বডিঃ

স্মার্টফোনটির বিল্ড কোয়ালিটি মোটামুটি পর্যায়ের। স্মার্টফোনটি প্লাস্টিক বিল্ড হলেও এর ফিনিশিং এবং আউটলুক বেশ গর্জিয়াস যা যে কাউকে সহজেই আকৃষ্ট করতে সক্ষম। ডিভাইসটিতে রয়েছে ৪” এফ ডব্লিউ ভি.জি.এ ডিসপ্লে। ডিসপ্লে কোয়ালিটি ভালো মানের এবং ডে লাইট ভিজিবিলিটি বেশ ভালো।

ব্যাক পার্টে রয়েছে ০.৩ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা উইথ ফ্ল্যাশ লাইট। ক্যামেরা মডিউলটি মাঝ বরাবর রাখা হয়েছে। এছাড়া ব্যাক পার্ট-টি বেশ কার্ভ এবং খুব সহজেই হাতের মধ্যে এটে যায়। যেহেতু ব্যাক পার্ট-টি প্লাষ্টিক মেইড, সো ব্যাক কাভার ইউজ করাই বুদ্ধিমানের কাজ।

ডিভাইসটির পুরুত্ব ১০.৩ মিলিমিটার। ডিভাইসটির উচ্চতা ১২৫ মিলিমিটার এবং প্রস্থ ৬৪.৬ মিলিমিটার। পুরো ডিভাইসটি ব্যাকআপ দিতে থাকছে ১৪০০ এমএএইচ লিথিয়াম আয়ন ব্যাটারি। আর ব্যাটারি সহ ডিভাইসটির ওজন মাত্র ১১৫ গ্রাম।

ক্যামেরা

ডিভাইসটির ফ্রন্টে রয়েছে ০.৩ মেগাপিক্সেল সেলফি ক্যামেরা। রিয়ার প্যানেলে রয়েছে ২ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা উইথ ফ্ল্যাশ লাইট।

হার্ডওয়্যার

প্রিমো ডি৯ এ ডিভাইসটিতে প্রসেসর হিসেবে থাকছে ১.৩ গিগাহার্জ কোয়াডকোর প্রোসেসর। ৫১২ মেগাবাইট র‌্যাম ৮ জিবি রম রয়েছে ডিভাইসটিতে যা মাইক্রো এসডি কার্ড মাধ্যমে ৬৪ জিবি পর্যন্ত বৃদ্ধি করা যাবে।

জিপিউ হিসেবে থাকছে মালি টি৮২০।  আমরা ডিভাইসটির বেঞ্চমার্ক স্কোর করেছি, স্কোর গুলো দেখে নিন।

কানেকটিভিটি ফিচারের মধ্যে রয়েছে ওয়াই-ফাই, ব্লুটুথ ভার্সন ৪.২, ইউএসবি ভি-২, ওটিএ আপডেটের সুবিধা।

ওয়ালটন প্রতিনিয়ত গ্রাহকদের আরো কাছাকাছি থাকার জন্য বিভিন্ন মডেলের স্মার্টফোন  লঞ্চ করছে। এন্ট্রি লেভেলের স্মার্টফোন থেকে শুরু করে ফ্ল্যাগশিপ ডিভাইস কি নেই ওয়ালটনের। প্রিমো ডি৯ এর কথাই ধরুন না। ২৯৩০ টাকায় যে সকল ফিচার আপনারা পাচ্ছেন, বাজারে প্রচলিত অন্য কোন স্মার্টফোন কোম্পানী এই দামে এই ফিচার দিতে পারবেনা, গ্যারান্টি দিতে পারি।

মন্তব্যসমূহ